ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৬ মে ২০২২, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ আপডেট : কিছুক্ষণ আগে

কক্সবাজারে নারীকে রগ কেটে হত্যা, দুইজন গ্রেপ্তার

  কক্সবাজার প্রতিনিধি

প্রকাশ : ২৬ জানুয়ারি ২০২২, ২২:০৭  
আপডেট :
 ২৬ জানুয়ারি ২০২২, ২২:০৮

কক্সবাজারে নারীকে রগ কেটে হত্যা, দুইজন গ্রেপ্তার
ছবি- প্রতিনিধি
কক্সবাজার প্রতিনিধি

কক্সবাজারে মোহছেনা আক্তার (৩৬) নামের এক নারীকে টাকা দেয়ার কথা বলে ডেকে নিয়ে হাত-পায়ের রগ কেটে হত্যা ঘটনায় প্রধান অভিযুক্তসহ দুই আসামিকে গ্রেপ্তার করেছে র‍্যাব।

বুধবার দুপুরে চকরিয়া উপজেলার বদরখালীতে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করা হয় বলে নিশ্চিত করেছেন র‍্যাব-১৫ কক্সবাজার ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লেফটেন্যান্ট কর্নেল খাইরুল ইসলাম সরকার।

গ্রেপ্তাররা হল, চকরিয়া উপজেলার কোনাখালী ইউনিয়নের দক্ষিণ কোনাখালী আব্দুল হাকিমপাড়ার নুরুল আলম ওরফে কালাবদার ছেলে মোহাম্মদ রিদুয়ান সিকদার ওরফে হৃদয় (৩৫) এবং একই এলাকার কবির আহমদের ছেলে মো. সুজন (২২)।

গত মঙ্গলবার (২৫ জানুয়ারি) সকালে পেকুয়া উপজেলার সদর ইউনিয়নের নুইন্ন্যামুইন্ন্যা ব্রিজ সংলগ্ন এলাকার বিল থেকে পেটে ছুরিকাঘাত এবং হাত-পায়ের রগ কাটা অবস্থায় মোহছেনার মৃতদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। এ সময় ঘটনাস্থল থেকে ১টি ছোরা, ১টি ভ্যানেটি ব্যাগ এবং জাতীয় পরিচয়পত্রের ১টি ফটোকপি উদ্ধার করা হয়। নিহত মোহছেনা আক্তার কক্সবাজার পৌরসভার খাঁজা মঞ্জিল এলাকার ছাবের আহমদের মেয়ে।

ঘটনার পর নিহতের ছেলে মোহাম্মদ আরিফ সাংবাদিকদের জানিয়েছিলেন, দেড় বছর আগে তার (আরিফ) বাবা মোহাম্মদ তৈয়ব মালয়েশিয়ায় মারা যান। সেখানে তার বাবার সঙ্গে চকরিয়া উপজেলার কোনাখালী এলাকার মোহাম্মদ রিদুয়ানের পরিচয় ছিল। তার বাবার মৃত্যুর পর রিদুয়ান দেশে আসলে তাদের পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ হয়। এক পর্যায়ে রিদুয়ান ওরফে হৃদয়ের সঙ্গে আরিফের মায়ের সম্পর্ক হয় এবং গত এক বছর আগে তারা বিয়ে করেন।

আরিফ আরও জানায়, তবে বিয়ের পর তার মা কখনই রিদুয়ানের বাড়িতে থাকেনি। রিদুয়ানই মাঝে-মধ্যে এসে তাদের বাড়িতে থাকতো। সোমবার দুপুরে রিদুয়ান টাকা দেয়ার কথা বলে চকরিয়ায় ডেকে নিয়ে তার মাকে হত্যা করেছে।

পেকুয়া থানার ওসি শেখ মোহাম্মদ আলী বলেন, আলোচিত এ হত্যাকাণ্ডে মঙ্গলবার রাতে নিহতের ছেলে আরিফ বাদী হয়ে মোহাম্মদ রিদুয়ান ওরফে হৃদয়কে প্রধান আসামি করে অজ্ঞাতনামা আরও ৫ জনের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। এরপর থেকে মামলার আসামিদের গ্রেপ্তারে পুলিশের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

লে. কর্নেল খাইরুল বলেন, মঙ্গলবার সকালে নির্মমভাবে হত্যার শিকার এক নারীর মৃতদেহ উদ্ধার এবং মামলা দায়ের পর পুলিশের পাশাপাশি র‍্যাবও জড়িতদের গ্রেপ্তারে অভিযান শুরু করে। এক পর্যায়ে বুধবার দুপুরে র‍্যাব খবর পায় হত্যার ঘটনায় জড়িত মূল হোতাসহ কয়েকজন চকরিয়ার বদরখালীতে অবস্থান করছে। পরে র‍্যাবের একটি দল অভিযান চালায়। এ সময় র‍্যাব সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে সন্দেহজনক দুই ব্যক্তি পালানোর চেষ্টাকালে গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তারদের পেকুয়া থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

বাংলাদেশ জার্নাল/এসকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত