ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১২ আশ্বিন ১৪২৯ আপডেট : ১ ঘন্টা আগে

বাস ভাড়া বাড়ায় যাত্রী-হেলপারদের বচসা

  চট্টগ্রাম প্রতিনিধি

প্রকাশ : ০৮ আগস্ট ২০২২, ০০:২৪  
আপডেট :
 ০৮ আগস্ট ২০২২, ১২:১০

বাস ভাড়া বাড়ায় যাত্রী-হেলপারদের বচসা
ছবি: প্রতিনিধি
চট্টগ্রাম প্রতিনিধি

দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতিতে দিশেহারা সাধারণ মানুষ। তার ওপর বাড়ানো হয়েছে জ্বালানি তেলের দাম। আন্তর্জাতিক বাজারে দাম বৃদ্ধির কারণ দেখিয়ে ৯ মাসের মাথায় ফের এক লাফে জ্বালানি তেলের ৪৭ শতাংশের বেশি দাম বাড়ানো হয়েছে। এর প্রভাবে বেড়েছে গণপরিবহন ভাড়া।

রোববার দুপুরে ডিজেল চালিত বাস ও মিনিবাসের সর্বোচ্চ ভাড়া পুনঃনির্ধারণ করে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে সরকারের সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগ।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, আন্তঃজেলা ও দূরপাল্লার রুটে চলাচলকারি বাস ও মিনিবাসের ক্ষেত্রে সড়ক পরিবহন ও মহাসড়ক বিভাগের প্রতি কিলোমিটারে যাত্রীপ্রতি সর্বোচ্চ ভাড়া ১ টাকা ৮০ পয়সার জায়গায় ২ টাকা ২০ পয়সা; ঢাকা ও চট্টগ্রাম মহানগরীতে চলাচলকারি বাসের ক্ষেত্রে প্রতি কিলোমিটার যাত্রীপ্রতি ভাড়া ২ টাকা ১৫ পয়সার স্থলে ২ টাকা ৫০ পয়সা নির্ধারণ করা হয়েছে।

এছাড়া ঢাকা ও চট্টগ্রাম মহানগরীতে চলাচলকারি মিনিবাস এবং ঢাকা পরিবহন সমন্বয় কর্তৃপক্ষের (ডিটিসিএ) আওতাধীন জেলার (নারায়ণগঞ্জ, মুন্সিগঞ্জ, নরসিংদী, গাজীপুর, মানিকগঞ্জ ও ঢাকা) অভ্যন্তরে চলাচলকারি বাস ও মিনিবাসের ক্ষেত্রে প্রতি কিলোমিটারে যাত্রীপ্রতি ভাড়া ২ টাকা ০৫ পয়সার স্থলে ২ টাকা ৪০ পয়সা; ঢাকা ও চট্টগ্রাম মহানগরীতে চলাচলকারি বাস ও মিনিবাসের ক্ষেত্রে সর্বনিম্ন ভাড়া যথাক্রমে ১০ টাকা ও ৮ টাকা নির্ধারিত হয়েছে।

চট্টগ্রাম নগরীর আগ্রাবাদ, জিইসি মোড়, দুই নম্বর গেট, মুরাদপুর, বহদ্দারহাট, শাহ আমানত সেতু, নিউমার্কেট, কোতোয়ালি ও চকবাজার ঘুরে বর্ধিত ভাড়া আদায় নিয়ে চালক, চালকের সহকারিদের সঙ্গে যাত্রীদের দিনভর হাতাহাতি, বাগবিতণ্ডা দেখা যায়। কিছু কিছু ক্ষেত্রে নির্ধারিত ভাড়ার চেয়ে বেশি ভাড়া নেয়ার অভিযোগ করেছেন যাত্রীরা।

যাত্রীরা বলছেন, বাসভাড়া বাড়ানোর কারণে স্বল্প আয়ের লোকজনের জীবনযাত্রায় বিরূপ প্রভাব পড়বে। বাসভাড়া বাড়ানো গরিবের ওপর বোঝা চাপানোর সমান বলে তাদের অনেকে মন্তব্য করেন।

ক্ষোভ প্রকাশ করে এক যাত্রী বলেন, ‘ভাড়া বাড়ানোর মাধ্যমে ডিজেলচালিত যানের আন্দোলন শেষ হল। মাঝখানে অবস্থান করা গ্যাসচালিত যানবাহনও একই ভাড়া নেবে আর বলবে আমাদের গাড়িও ডিজেলে চলে। শেষমেশ জনগণেরই পকেটমার!’

নগরের কোতোয়ালি মোড়ে কথা হয় মোহাম্মদ আলীর সঙ্গে। তিনি বলেন, বহদ্দারহাট থেকে কোতোয়ালি মোড়ে টেম্পো ভাড়া ছিল ১০ টাকা। কিন্তু আজকে থেকে তারা নিচ্ছে ১৫ টাকা। কোনোভাবে কম নিতে রাজি না চালকেরা।

বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কর্মরত শরিফ আহমেদ জানান, ‘যে বা যারা তেলের দাম বাড়িয়েছে তারা দেশদ্রোহী। হুট করে জ্বালানি তেলের দাম ৪০/৫০ শতাংশ বাড়িয়ে দেয়ায় জনগণের মাথায় হাত। গণপরিবহনে ভাড়া বাড়ানোর উদ্দেশ্যে বন্ধ ঘোষণা গণপরিবহন। সবকিছুর প্রভাব পড়বে সাধারণ মানুষের ঘাড়ের উপর।

তারেক হাসান নামে একজন জানান, ‘রাস্তায় প্রচুর সিএনজি চালিত গাড়ি দরকার। আর ডিজেল চালিত গাড়ি আমদানি ও ক্রয়ে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা দরকার। ডিজেল চালিত গাড়ি রাস্তায় না থাকলে, ডিজেলের চাহিদা কমবে। আর ডিমান্ড কমলে অটোমেটিক দাম নেমে আসবে’।

চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পরিবহন মালিক গ্রুপের সভাপতি বেলায়েত হোসেন বেলাল বলেন, ‘তেলের মূল্য বাড়ায় সরকার গণপরিবহনেরও নতুন ভাড়া নির্ধারণ করেছে। আমরা পরিবহন শ্রমিক তথা গণপরিবহনের চালক-হেলপারদের বলে দিয়েছি যেন সেই অনুযায়ী ভাড়া আদায় করা হয়। ইচ্ছেমতো ভাড়া নেয়ার সুযোগ নেই। তবে ভাড়া বাড়ায় যাত্রীদের সঙ্গে চালক-হেলপারদের কিছু ঝামেলা হচ্ছে। আমরা শ্রমিকদের বলেছি যেন ভালো আচরণের মাধ্যমে ভাড়া আদায় করা হয়।’

কনজুমারস অ্যাসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ (ক্যাব) কেন্দ্রীয় সহসভাপতি এসএম নাজের হোসাইন বলেন, জ্বালানি তেলের দাম বৃদ্ধি সকল ক্ষেত্রে প্রভাব পড়বে। পণ্য পরিবহন ব্যয় বাড়বে, গণপরিবহনের ভাড়া বাড়বে, রপ্তানিতে প্রভাব পড়বে, সর্বপরি মানুষের জীবনযাত্রার ব্যয় বেড়ে যাবে। বড় ধাক্কা খাবে পোশাক খাত। সার্বক্ষণিক তাদের জেনারেটর চালিয়ে রাখতে হয়। তাছাড়া রপ্তানিমুখী সকল ক্ষেত্রে ব্যয় বাড়বে। সাধারণ মানুষের জীবনযাত্রার ব্যয় ৮০ থেকে একশ শতাংশ বেড়ে যাবে।

সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অনেকে বলছেন, মানুষ দেউলিয়া হয়ে যাবে। আসলে সেটাই হবে, মানুষ দেউলিয়া হয়ে যাবে। চারদিকে ব্যয় বেড়ে যাওয়াতে কি করবে সে দিশা পাবে না। একসময় গিয়ে মানুষকে দেউলিয়াই হতে হবে।

প্রসঙ্গত, শুক্রবার রাতে জ্বালানি তেলের দাম বৃদ্ধির ঘোষণা দেয় বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়। প্রতি লিটার ডিজেলে দাম বেড়েছে ৩৪ টাকা, কেরোসিনে ৩৪ টাকা, অকটেনে ৪৬ টাকা এবং পেট্রোলে ৪৪ টাকা। দাম বাড়ার পর প্রতি লিটার ডিজেল ১১৪ টাকা, কেরোসিন ১১৪ টাকা, অকটেন ১৩৫ টাকা ও পেট্রোল ১৩০ টাকায় কিনতে হচ্ছে। এর আগে খুচরা মূল্য ছিল প্রতি লিটার ডিজেল ৮০ টাকা, কেরোসিন ৮০ টাকা, অকটেন ৮৯ টাকা ও পেট্রোল ৮৬ টাকা।

বাংলাদেশ জার্নাল/জিকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত