ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ আপডেট : ২০ মিনিট আগে
শিরোনাম

জাহাজের ধাক্কা থেকে বাঁচতে নৌকা থেকে ঝাঁপ, যমুনায় লাশ হলো দুইজন

  পাবনা প্রতিনিধি

প্রকাশ : ০৩ অক্টোবর ২০২২, ১৭:৩৯  
আপডেট :
 ০৩ অক্টোবর ২০২২, ১৮:১৯

জাহাজের ধাক্কা থেকে বাঁচতে নৌকা থেকে ঝাঁপ, যমুনায় লাশ হলো দুইজন
নগরবাড়ী ঘাটে মরদেহ ভেসে ওঠার খবরে স্বজন ও স্থানীয়দের ভিড়। ছবি: প্রতিনিধি
পাবনা প্রতিনিধি

পাবনার বেড়া উপজেলার নগরবাড়ী নৌ-বন্দর সংলগ্ন যমুনা নদীতে নিখোঁজ হওয়া দুই যুবকের মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। নিখোঁজের ৪৪ ঘণ্টা পর সোমবার সকালের দিকে নগরবাড়ী নৌ-বন্দরের এক কিলোমিটার ভাটিতে প্রতাপপুর নামক স্থানে তাদের মৃতদেহ ভেসে ওঠে।

মৃতরা হলেন, সাঁথিয়া উপজেলার ক্ষেতুপাড়া ইউনিয়নের ভৈরবপুর গ্রামের মৃত আক্কাছ সর্দারের ছেলে পান্না সর্দার (২৮) এবং সুজানগর উপজেলার কোলচুড়ি গ্রামের আমিরুল সেখের ছেলে আশিক ওরফে পিয়াস সেখ (২০)। তারা সম্পর্কে খালাত ভাই।

স্থানীয়রা জানান, সোমবার সকাল ৭টার দিকে প্রতাপপুর জামে মসজিদের কাছে যমুনা নদীতে মৃতদেহ দুটি ভেসে ওঠে। সেখানে একটি কার্গো জাহাজ ছেড়ে যাওয়ার পরপরই মৃতদেহ দুটি ভেসে ওঠে। স্রোতে মৃতদেহ দুটি জাহাজের নিচে আটকে ছিল বলে তাদের ধারণা। পরে স্থানীয়রা নৌকা নিয়ে মৃতদেহ উদ্ধার করে নৌ-পুলিশকে খবর দেয়। মৃতদেহ পাওয়ার পর স্বজন ও গ্রামবাসীর আহাজারিতে নদী তীরের পরিবেশ ভারি হয়ে ওঠে।

এই দুই যুবক শনিবার (১ অক্টোবর) বেলা ১১টার দিকে নগরবাড়ী নৌবন্দরে জাহাজের ধ্ক্কা থেকে বাঁচতে নৌকা থেকে যমুনায় ঝাঁপ দিয়ে নিখোঁজ হয়েছিলেন। শনিবার ও রোববার দুপুর পর্যন্ত ফায়ার সার্ভিস ও ডুবুরিদল উদ্ধার অভিযান চালায়। রোববার দুুপুরে বৈরি আবহাওয়া ও তীব্র স্রোতের কারণে ডুবুরিরা অনুসন্ধান অভিযান বন্ধ করার সিদ্ধান্ত নেয়।

পুরানভারেঙ্গা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এএম রফিকুল্লাহ জানান, নিখোঁজ দু’জনের মধ্যে পান্না সর্দার সাঁতার জানতেন। তিনি তার ছোট ভাই আশিককে উদ্ধার করতে গিয়ে তলিয়ে গিয়েছিলেন।

নগরবাড়ী নৌ পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ শরিফুল ইসলাম জানান, পাবনায় ডুবুরি না থাকায় তারা রাজশাহীতে ডুবুুরির জন্য খবর পাঠান। সেখান থেকে ডুবুরিদল শনিবার বিকেলে ৫টায় নগরবাড়ী ঘাটে পৌঁছেই উদ্ধার অভিযান শুরু করে। রোববার দুপুর পর্যন্ত তারা উদ্ধার অভিযান চালায়। তবে ডুবুরিরা মৃতদেহের সন্ধান পায়নি। শনিবার রাত থেকেই প্রচণ্ড ঝড়ো হাওয়া ও বৃষ্টিপাত শুরু হয়। ঝড়ো হাওয়ায় নদীতে তীব্র স্রোত বইতে থাকে। এরপরই ডুবুরিদল উদ্ধার অভিযান সমাপ্ত ঘোষণা করে রাজশাহী ফিরে যায়।

তিনি জানান, আজ লাশ ভেসে ওঠার খবর পেয়ে নৌ-পুলিশের সদস্যরা ঘটনাস্থলে যায়। এ ব্যাপারে পরবর্তী আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার পর মৃতদেহ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

উল্লেখ্য, খালাত বোনের বিয়ে উপলক্ষ্যে পান্না সর্দার এবং আশিক সেখ নগরবাড়ী ঘাট ও বন্দর সংলগ্ন রঘুনাথপুর গ্রামে তাদের খালু নজরুল ইসলাম সেখের বাড়িতে বেড়াতে গিয়েছিলেন। শনিবার ছেলে পক্ষের বাড়ির অনুষ্ঠানে তাদের যাওয়ার কথা ছিল। তারা শখের বশে একটি নৌকা নিয়ে যমুনা নদীতে ঘুরতে যান। সেখানে জাহাজের ধ্ক্কা থেকে বাঁচতে নৌকা থেকে ঝাঁপ দিয়ে নিখোঁজ হন তারা।

বাংলাদেশ জার্নাল/এসকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত