ঢাকা, শুক্রবার, ২০ মে ২০২২, ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯ আপডেট : ১ মিনিট আগে

এরদোগানের সমালোচনা করায় কারাগারে নারী সাংবাদিক

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশ : ২৩ জানুয়ারি ২০২২, ১৯:০১  
আপডেট :
 ২৩ জানুয়ারি ২০২২, ১৯:৪৬

এরদোগানের সমালোচনা করায় কারাগারে নারী সাংবাদিক
ছবি- সংগৃহীত
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

তুরস্কের রাষ্ট্রপতি রিসেপ তাইয়্যেপ এরদোগানকে অপমান করার অভিযোগে বিশিষ্ট সাংবাদিক সেদেফ কাবাসকে বিচারাধীন কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছে দেশটির একটি আদালত।

শনিবার ভোরে তুরস্কের পুলিশ কাবাসকে আটক করে ইস্তাম্বুলের একটি থানায় নিয়ে গিয়ে সেখানে তার আনুষ্ঠানিক গ্রেপ্তারের পক্ষে রায় দেয়া হয়। এরপর তাকে শহরের প্রধান আদালতে স্থানান্তর করা হয়।

সেদেফ কাবাসের বিরুদ্ধে অভিযোগটি হলো, সে নিজের টুইটার একাউন্ট এবং একটি বিরোধী টেলিভিশন চ্যানেলে রাষ্ট্রপতিসহ সরকারী কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্যে নিন্দা করে মন্তব্য করেছিলো।

কাবাসের মন্তব্যটি ছিলো, "ষাঁড়টি যখন প্রাসাদে ওঠে, তখন সে রাজা হয় না, কিন্তু প্রাসাদটি শয্যাগারে পরিণত হয়।"

এরপরই তুরস্কের যোগাযোগ বিভাগের প্রধান ফাহরেটিন আলতুন কাবাসের মন্তব্যের তীব্র নিন্দা করে টুইট করেছেন, "রাষ্ট্রপতির কার্যালয়ের সম্মান আমাদের দেশের সম্মান। আমি আমাদের রাষ্ট্রপতি এবং তার কার্যালয়ের বিরুদ্ধে করা অশ্লীল অপমানের নিন্দা জানাই।"

এছাড়া তুরস্কের বিচারমন্ত্রী আব্দুল হামিত গুলও টুইটারে বলেন, কাবাস তার "বেআইনি" কথার জন্য যা প্রাপ্য তাই পাবে।

এদিকে আদলতে হাজির করার পর কাবাসকে ইস্তাম্বুলের বাকিরকোয় কারাগারে পাঠানো হয়েছে। তার আইনজীবী উগুর পয়রাজ বলেছেন, তিনি সোমবার বেআইনি এই সিদ্ধান্তের বিরুদ্ধে আপিল করবেন।

তিনি আরও আশাবাদ ব্যক্ত করএ বলেন, আমরা আশা করি তুরস্ক শীঘ্রই আইনের শাসনে ফিরে আসবে।

অন্যদিকে কাবাসের গ্রেপ্তারের তিব্র সমালোচনা করে তুরস্কের টেলি ওয়ান চ্যানেলের প্রধান সম্পাদক মেরদান ইয়ানারদাগ বলেন, একটি প্রবাদের কারণে রাত ২ টায় তাকে আটক করা একেবারেই অগ্রহণযোগ্য। এটি আসলে সাংবাদিক, মিডিয়া এবং সমাজকে ভয় দেখানোর চেষ্টা।

সূত্র: আল-জাজিরা

বাংলাদেশ জার্নাল/এসএস

  • সর্বশেষ
  • পঠিত
  • আলোচিত