ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৩ মার্চ ২০২৩, ৯ চৈত্র ১৪২৯ আপডেট : ৬ মিনিট আগে
শিরোনাম

পশ্চিমা অস্ত্র রাশিয়ায় আঘাত করবে না: জার্মান চ্যান্সেলর

  আন্তর্জাতিক ডেস্ক

প্রকাশ : ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৫:৫৭  
আপডেট :
 ০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ১৯:০০

পশ্চিমা অস্ত্র রাশিয়ায় আঘাত করবে না: জার্মান চ্যান্সেলর
ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি এবং জার্মান চ্যান্সেলর ওলাফ শোলজ। ফাইল ছবি
আন্তর্জাতিক ডেস্ক

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি পশ্চিমাদের সরবরাহ করা অস্ত্র রাশিয়ার ভূখন্ডে হামলার জন্য ব্যবহার না করার ব্যাপারে সম্মত হয়েছেন বলে নিশ্চিত করেছেন জার্মান চ্যান্সেলর ওলাফ শোলজ। রোববার এক সাক্ষাৎকারে এই মন্তব্য করেন জার্মান চ্যান্সেলর।

জার্মান সাপ্তাহিক প্রত্রিকা বিল্ড অ্যাম সোনট্যাগের সাথে এক সাক্ষাৎকারে শোলজ বলেন, এ বিষয়ে একটি ঐকমত্য হয়েছে। পশ্চিমাদেশগুলো উন্নত অস্ত্র যেমন, রকেট এবং ক্ষেপণাস্ত্র ব্যবস্থা এমনকি ট্যাঙ্ক সরবরাহ করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছে, এ সব অস্ত্র ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চল থেকে রাশিয়ান সৈন্যদের হটানোর চেষ্টায় সহায়ক হবে। তবে রাশিয়ার ভূখন্ডে হামলায় এগুলো ব্যবহার হবেনা।

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় জার্মানির মতো দেশের হস্তক্ষেপকে তার জাতির সংগ্রামের সাথে তুলনা করেছেন। স্ট্যালিনগ্রাদের যুদ্ধে সোভিয়েত বিজয়ের ৮০তম বার্ষিকীতে বৃহস্পতিবার তিনি বলেন, বারবার আমরা পশ্চিমের যৌথ আগ্রাসনকে প্রতিহত করতে বাধ্য হচ্ছি।

জার্মান চ্যান্সেলর ওলাফ শোলজ পুতিনের এই তুলনা প্রত্যাখ্যান করেছেন। তিনি বলেন, পুতিনের কথাগুলো অযৌক্তিক ঐতিহাসিক তুলনার একটি সিরিজের অংশ যা তিনি ইউক্রেনের উপর তার আক্রমণকে ন্যায্যতা দিতে ব্যবহার করেন।

শোলজ বলেন, আমাদের মিত্রদের সাথে একত্রে, আমরা ইউক্রেনকে যুদ্ধ ট্যাঙ্ক সরবরাহ করছি যাতে দেশটি আত্মরক্ষা করতে পারে। যুদ্ধের ব্যাপকতা এড়াতে ঐক্যমত্যের ভিত্তিতে এই পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে।

সাক্ষাৎকারে শোলজ আরও বলেন, রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন তাদের টেলিফোন কথোপকথনে জার্মানির বিরুদ্ধে কোনো হুমকি দেননি।

দুই নেতার মধ্যে সর্বশেষ ফোনালাপ হয়েছিল ডিসেম্বরের শুরুতে। সেময় ইউক্রেনের যুদ্ধ সম্পর্কে তাদের দৃষ্টিভঙ্গি ভিন্ন বলে পুতিনকে পরিষ্কার করে বলেছিলেন বলে দাবি করেন শোলজ।

শোলজ বলেন, আমি পুতিনকে পরিষ্কার করে দিয়েছি যে যুদ্ধের একমাত্র দায় রাশিয়ার। ইউক্রেনের কিছু অংশ বা পুরো দেশকে নিজেদের নিয়ন্ত্রণে নিতে রাশিয়া বিনা কারণে তার প্রতিবেশী দেশ আক্রমণ করেছে।

এদিকে ইউক্রেনের জন্য নতুন করে ২ বিলিয়ন ডলারেরও বেশি মূল্যের সামরিক সহায়তা প্রস্তুত করছে যুক্তরাষ্ট্র। এই প্যাকেজে প্রথমবারের মতো দূরপাল্লার রকেটের পাশাপাশি অন্যান্য যুদ্ধাস্ত্র ও অস্ত্রও অন্তর্ভুক্ত থাকবে বলে আশা করা হচ্ছে। দুই মার্কিন কর্মকর্তার বরাত দিয়ে বুধবার এই তথ্য জানিয়েছে বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

মার্কিন কর্মকর্তাদের বরাতে রয়টার্সের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, এই সপ্তাহের মধ্যেই এই সহায়তা ঘোষণা করা হবে। এতে প্যাট্রিয়ট এয়ার ডিফেন্স সিস্টেম, যা নির্ভুল-নির্দেশিত যুদ্ধাস্ত্র পরিচিত এবং জ্যাভলিন অ্যান্টি-ট্যাঙ্ক অস্ত্রের জন্য সহায়তা সরঞ্জাম অন্তর্ভুক্ত করার আশা করা হচ্ছে। এছাড়াও অন্তর্ভুক্ত থাকবে গ্রাউন্ড লঞ্চড স্মল ব্যাস মিসাইল, যার রেঞ্জ ১৫০ কিলোমিটার। তবে ৩০০ কিলোমিটার রেঞ্জের এটিএসিএমএস ক্ষেপণাস্ত্রের জন্য ইউক্রেনের অনুরোধ প্রত্যাখ্যান করেছে যুক্তরাষ্ট্র।

সূত্র: এএফপি

বাংলাদেশ জার্নাল/এমআর

  • সর্বশেষ
  • পঠিত