ঢাকা, বুধবার, ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০২৩, ২৫ মাঘ ১৪২৯ আপডেট : ২৩ মিনিট আগে
শিরোনাম

প্রোটিন সমৃদ্ধ ফল

  জার্নাল ডেস্ক

প্রকাশ : ০৩ ডিসেম্বর ২০২২, ১৬:৪৯  
আপডেট :
 ০৪ ডিসেম্বর ২০২২, ১৭:৫২

প্রোটিন সমৃদ্ধ ফল
প্রতীকী ছবি
জার্নাল ডেস্ক

প্রোটিনের মূল উৎস মাছ, মাংস ও ডিম। তাই আমাদের প্রোটিনের চাহিদা মেটাতে এই তিনটির যেকোনো একটি আমরা খাদ্য তালিকায় রোজ রাখি। তবে অনেকের হাই কোলেস্ট্রলের এবং হাই ব্লাড প্রেসারের সমস্যায় ভোগেন। সেই ক্ষেত্রে তারা কীভাবে তাদের প্রোটিনের চাহিদা পূরণ করবেন?

অনকে নিরামিষ খাবারেও প্রোটিন রয়েছে। এই তালিকায় রয়েছে ফলও। তবে যে কোনো ধরনের ফল খেলে চলবে না। জানতে হবে, কোন ফলে প্রোটিনের পরিমাণ বেশি।

পেয়ারা

পেয়ারা যেমন সুস্বাদু ফল, তেমনই উপকারী। পেয়ারার রস বা জ্যামও বেশ জনপ্রিয়। প্রতি ১০০ গ্রাম পেয়ারায় থাকে ২.৬ গ্রাম প্রোটিন। প্রোটিন ছাড়াও পেয়ারায় রয়েছে ভিটামিন সি। প্রোটিনের ঘাটতি পূরণ করতে রোজ খেতে পারেন একটি করে পেয়ারা।

কমলালেবু

বাঙালির কাছে শীতকাল মানেই পিকনিক আর কমলালেবু। কমলালেবু যেমন স্বাদের, তেমনি যত্ন নেয়, সুস্থ রাখে শরীরও। এই লেবুতে থাকে নানা উপকারী উপাদান, যা শরীরের যত্ন নেয়। প্রতি ১০০ গ্রাম কমলালেবুতে থাকে ০.৯ গ্রাম প্রোটিন। এই লেবুতে রয়েছে ভরপুর পরিমাণে ভিটামিন সিও।

কলা

অনেকেরই রোজের পাতে কলা থাকে। কলাতে থাকে প্রচুর পরিমাণ পটাশিয়াম। যা উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে রাখতে সাহায্য করে। আরও নানা ধরনের উপাদানের মধ্যে রয়েছে প্রোটিনও। ১০০ গ্রাম কলায় থাকে ১.১ গ্রাম প্রোটিন। যা শরীরের অনেক সমস্যা দূর করে নিমেষে।

কিশমিশ

আঙুর ফল শুকিয়ে তৈরি হয় কিশমিশ। পায়েস হোক বা পোলাও, কিশমিশ ছাড়া ঠিক জমে না। প্রতি ১০০ গ্রাম কিশমিশের মধ্যে থাকে ৩ গ্রাম প্রোটিন। শরীরের অনেক সমস্যা দূর করতে রোজের পাতে রাখতে পারেন ভেজানো কিশমিশ।

কাঁঠাল

অনেকেই জানেন না, এই খাবারে প্রোটিন কতটা। বিশেষ করে যারা মাংস খান না, তাদের জন্য কাঁঠাল খুবই জরুরি। সাধারণ ফলের তুলনায় এতেও প্রোটিনের পরিমাণ যথেষ্ট বেশি। এক কোয়া কাঁঠালে থাকে ২.৮ গ্রাম প্রোটিন।

বাংলাদেশ জার্নাল/নুসরাত/আরকে

  • সর্বশেষ
  • পঠিত