বিপিএলে টোকিও অলিম্পিকের গাইডলাইন অনুসরণ করবে বিসিবি

প্রকাশ : ২০ জানুয়ারি ২০২২, ১৬:৩৭ | অনলাইন সংস্করণ

  ক্রীড়া প্রতিবেদক

ছবি- সংগৃহীত

 

করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্টের সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় আসন্ন বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) সফল করার জন্য জৈব সুরক্ষা বলয়ের পরিবর্তে ম্যানেজড ইভেন্ট এনভায়রনমেন্ট (এমইই) অনুসরণ করা হবে বলে জানিয়েছে দেশের ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের (বিসিবি) মেডিক্যাল বিভাগ।

গত বছর প্রথমবারের মত এমইই এর প্রচলন ঘটে টোকিও অলিম্পিকে। এটি দারুণভাবে সফল হওয়ায় অনুপ্রাণিত হয়ে বিসিবিও একই পদ্ধতি অনুসরণ করতে যাচ্ছে।

এ ব্যাপারে বিসিবির প্রধান চিকিৎসক ডা. দেবাশিষ চৌধুরী বলেন, টোকিও অলিম্পিকের আলোকে আমরা এই গাইডলাইনটি অনুসরণ করতে যাচ্ছি। বাংলাদেশের কথা মাথায় রেখেই আমরা টোকিও অলিম্পিকের গাইডলাইন বাস্তবায়নের চেস্টা করছি।

আগে গোটা বিশ্ব জৈব সুরক্ষা বলয় ব্যবহার করেছে। তবে এখন সেই পদ্ধতি থেকে সরে এসেছে বিশ্ব। এখন ম্যানেজড ইভেন্ট এনভায়রমেন্ট (এমইই) ব্যবহৃত হচ্ছে, যা অ্যাথলেটদের মানসিকভাবে সতেজ রাখার জন্য প্রথম ব্যবহৃত হয়েছে টোকিও অলিম্পিকে। এমইই পদ্ধতিতে জৈব সুরক্ষা বলয়ের কঠোরতা অনেকটা নিরসন করা হয়েছে।

করোনা পরীক্ষায় অনেকের রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে এবং তাদেরকে আইসোলেশনে রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছেন দেবাশিষ চৌধুরী। তিনি বলেন, এটি যেহেতু একটি স্পর্শকাতর বিষয়, তাই আক্রান্ত খেলোয়াড়, কর্মকর্তা ও স্টাফদের নাম এই মুহুর্তে প্রকাশ করা যাবে না।

বাংলাদেশের অন্য আন্তর্জাতিক সিরিজের মতো এই টুর্নামেন্টটিও সফলভাবে সম্পন্ন করতে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো বিসিবিকে সার্বিক সহযোগিতা করছে বলেও উল্লেখ করেন বিসিবির এই চিকিৎসক।

ডা. দেবাশীষ বলেন, বিপিএল কমিটির নির্দেশনা মোতাবেক করোনা টেস্ট পরিচালনা করা হয়েছে। গত তিনদিনে আমরা প্রচুর টেস্ট করিয়েছি এবং এর ফল ফ্র্যাঞ্চাইজিদের জানিয়ে দেয়া হয়েছে। বহুদলীয় টুর্নামেন্টে অংশীজনই গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালন করে। টুর্নামেন্টে খেলোয়াড়দের নিরাপত্তার কথা মাথায় রেখে আমরা প্রটোকল তৈরি করে দিয়েছি। সেখানে নিয়মিত টেস্টেরও ব্যবস্থা রাখা হয়েছে এবং ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো ইচ্ছে করলে সেখানে টেস্ট করাতে পারবেন। তবে স্বাস্থ্যবিধি অবশ্যই মানতে হবে।

বাংলাদেশ জার্নাল/আইএইচ/এমজে